প্রতিরক্ষা ক্ষেত্রে ৪০ হাজার কোটি বিনিয়োগ করল মোদী সরকার

নয়াদিল্লি: সামরিক ক্ষেত্রে আরও বড় পদক্ষেপ নিয়ে ফেলল মোদী সরকার। সাবমেরিন এবং অ্যান্টি ট্যাঙ্ক গাইডেড মিসাইল তৈরিতে মোট ৪০ হাজার কোটি টাকা খরচ মঞ্জুর করল প্রতিরক্ষামন্ত্রক। বৃহস্পতিবার ডিফেন্স অ্যাকুইজিসন কাউন্সিলের বৈঠক হয়। সেই বৈঠকেই এই বড় সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

আরও পড়ুন- মৌসম তৃণমূলে যাচ্ছেন, রাহুল গান্ধীকে আগেই জানিয়েছিলেন এই বিজেপি নেতা

বৈঠকে গৃহীত সিদ্ধান্ত অনুসারে, ছয়টি সাবমেরিন এবং পাঁচ হাজার অ্যান্টি ট্যাঙ্ক গাইডেড মিসাইল তৈরি করা হবে। নৌসেনার জন্য সাবমেরিন এবং আর্মির জন্য অ্যান্টি ট্যাঙ্ক গাইডেড মিসাইল তৈরি করা হবে বলে জানানো হয়েছে প্রতিরক্ষামন্ত্রকের পক্ষ থেকে।

আরও পড়ুন- নাগরিক সমস্যা দ্রুত মেটাতে তৎপর পুরসভা, একগুচ্ছ পরিষেবার সূচনা

প্রজেক্ট ৭৫(আই) প্রকল্পের অধীনে এই ছয়টি সাবমেরিন এবং পাঁচ হাজার অ্যান্টি ট্যাঙ্ক গাইডেড মিসাইল তৈরি করা হবে বলে জানিয়েছেন প্রতিরক্ষামন্ত্রক। মেক ইন ইন্ডিয়া প্রকল্পের অধীনেই চলবে এই প্রকল্পের কাজ। প্রতিরক্ষা মন্ত্রকের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে যে এই প্রকল্পের জন্য ৪০ হাজার কোটি টাকা খরচ মঞ্জুর করা হল। এটি মেক ইন ইন্ডিয়ারা আওতায় প্রতিরক্ষামন্ত্রকের দ্বিতীয় প্রয়াস।

অন্যদিকে, গত মাস থেকেই জলপথে দেশের নিরাপত্তা আরও জোরদার করতে ৫০টির বেশি যুদ্ধজাহাজ ও সাবমেরিন কিনতে তৎপর হয়েছিল নৌসেনা৷ গত মাসের শুরুর দিকে নৌসেনা প্রধান অ্যাডমিরাল সুনীল লাম্বা একথা জানান৷ তিনি বলেন, ‘জলপথে শক্তি বাড়াতে আরও ৫৬টি যুদ্ধজাহাজ ও সাবমেরিন কেনার প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে৷ সেই সঙ্গে তৃতীয় যুদ্ধবিমানবাহী রণতরী কেনা নিয়েও কথাবার্তা এগিয়েছে৷’

ফের সুযোগ: নুন্যতম ৮ পাশ করলেই ১৪ হাজারের চাকরি বাঁধা

একাধিক কর্মী নিয়োগ করবে ভোডাফোন। সংস্থার মোবাইল মিনি স্টোরগুলির জন্যে কর্মী নিয়োগ করবে ভোডাফোন। এই সমস্ত পদে নিয়োগ হবে মহিলা এবং পুরুষ। অনলাইনের মাধ্যমে এই সমস্ত পদের জন্যে আবেদন করা যাবে। তবে আবেদন করার আগে জেনে নিন আবেদনের জন্যে নুন্যতম যোগ্যতা কত লাগবে?

  • নীচের প্রয়োজনীয় তথ্যগুলি জানুন-

Age Limit : Candidates Should Be 18 to 35 Yrs Old .

Company : Vodafone

Salary : 7,800-14,700/- (Mobile Bill + Intensive )
Educational Qualification : All The Interested candidates Must Have Complete their Class 8th Exam . No need of Computer knowledge . Should Know Proper Bengali Language . ভালো বাংলা জানতে হবে।

কীভাবে আবেদন জানাবেন-

অনলাইনের মাধ্যমে আবেদন জানাতে পারেন- www.vodafone.in/careers/apply-now

চাকরির সুযোগ করে দিচ্ছে বর্ধমানের সাকসেস শিক্ষা কনসালটেন্ট সংস্থা

স্টাফ রিপোর্টার, বর্ধমান: বর্তমানে চাকরির জন্য যখন দিশেহারা ছাত্রছাত্রীরা তখন তাদের সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিল বর্ধমানের সাকসেস শিক্ষা কনসালটেন্ট নামে একটি সংস্থা৷ বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের যোগ্য ছাত্রছাত্রীদের বিভিন্ন কোম্পানিতে চাকরি পাইয়ে দেওয়ার ক্ষেত্রে নজির গড়লেন এই সংস্থা৷

ইতিমধ্যেই এই সংস্থা দুর্গাপুরে মাইকেল মধুসূদন মঞ্চে ১২০০ জন ছাত্রছাত্রীদের নিয়ে অনুষ্ঠান করেছিল৷ সেখানে প্রায় ১০০ ছাত্রছাত্রীকে প্লেসমেন্টের সুযোগ করে দেয়৷ একইভাবে এবার বর্ধমানের নবাবহাটে একটি বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের সভা ঘরে আয়োজিত হয় অনুষ্ঠান৷ সেখানে হাজির ছিল ১১০ জন ছাত্রছাত্রী। তাদের মধ্যে ৫২ জনকে চাকরির সুযোগ দিল তারা৷ এই ৫২ জন তিনটি কোম্পানিতে কাজের সুযোগ পেল৷

সাকসেস শিক্ষা কনসালটেন্টের কর্ণধার চন্দন কুমার ঝাঁ জানিয়েছেন, চলতি সময়ে যুবক যুবতীদের বেকারত্বের জ্বালা কুঁড়ে কুঁড়ে খাচ্ছে। তাই তাঁরা বিনা অর্থে বেকারদের কাছে এই সুযোগ সৃষ্টি করার চেষ্টা করছেন। এরফলে বহু গরিব ও দুঃস্থ ছাত্রছাত্রী পড়তে পড়তেই চাকরির সুযোগ পাচ্ছেন। এই সুযোগ দিতে হাজির ছিলেন পেজ টার্নর আইটি সেক্টর প্রাইভেট লিমিটেড, বাজাজ আলিয়াঞ্জ এবং আদিত্য বিড়লা গ্রুপ। প্রথম বর্ধমান শহরে এই ধরণের উদ্যোগ৷

চিন-পাকিস্তানের চিন্তা বাড়াতে ভারতের লক্ষ্য HAROP সুইসাইড ড্রোন

নয়াদিল্লি: বায়ুসেনাবাহিনীকে আরও শক্তিশালী করতে এবার ভারতের লক্ষ্য HAROP সুইসাইড ড্রোন৷ এই সুইসাইড ড্রোন শত্রুর ওপর নির্ভুল নিশানা করে তাকে সম্পূর্ণ ধ্বংস করে দিতে সক্ষম৷ উন্নতমানের এই ড্রোনে ইলেক্ট্রো-অপটিক্যাল সেনসর থাকবে৷

সূত্রের খবর, খুব শীঘ্রই একটি উচ্চ-স্তরীয় বৈঠকে প্রতিরক্ষা মন্ত্রক এই ড্রোন বায়ুসেনাতে যুক্ত করার বিষয়ে আলোচনা হতে পারে বলে মনে করা হচ্ছে৷

ফাইল ছবি

এর পাশাপাশি ইজরায়েলের সঙ্গে চিতা প্রজেক্ট নিয়েও আলোচনা চলছে বলে জানা গিয়েছে৷ এই ড্রোনগুলি যথেষ্ট উন্নতমানের, অত্যাধুনিক৷

এর পাশাপাশি দেশীয় কমব্যাট ড্রোন তৈরিতেও জোর দেওয়া হচ্ছে৷ এই প্রোজেক্ট সম্পূর্ণ হলে চিন এবং পাকিস্তান সীমান্তে এগুলি মোতায়েন করা হতে পারে৷ শত্রু ধ্বংসে আমেরিকাও এই ধরণের কমব্যাট ড্রোন ব্যবহার করে থাকে৷

২ লক্ষ ৩০হাজার চাকরি রেলে, থাকছে উচ্চবর্ণের সংরক্ষণও

নয়াদিল্লি: লোকসভা ভোটের আগেই রেলে বিপুল সংখ্যক নিয়োগের কথা ঘোষণা করলেন রেলমন্ত্রী পীযূষ গোয়েল। নিয়োগ করা হয়ে অন্তত ২ লক্ষ ৩০ হাজার কর্মী।

আগামী দু’বছরে হবে এই নিয়োগ। প্রথম দফায় নেওয়া হবে ১ লক্ষ ৩১ হাজার ৪২৮ জনকে, তার জন্য নোটিশ জারি করবে রেল৷ ফেব্র‌ুয়ারি বা মার্চেই রেল নিয়োগের নোটিশ দেবে৷ দ্বিতীয় পর্যায়ে ৯৯ হাজার কর্মী নেবে রেল৷ তার নোটিফিকেশন জারি করা হবে ২০২০ সালের মে-জুন মাস নাগাদ৷

রেলমন্ত্রী জানান, রেলে ২ লক্ষ ৩০ হাজার আরও কর্মসংস্থান তৈরি হবে৷ বর্তমানে ১ লক্ষ ৩২ হাজার পদ খালি আছে৷ আগামী ২ বছরে ১ লক্ষ লোক আরও অবসর নেবেন৷ অর্থাত্‍‌ পুরনো Group C ও Group D-র শূন্যপদ ও এ বার নতুন তৈরি হওয়া শূন্য পদ মিলিয়ে আগামী ২ বছরে প্রচুর কর্মী নেবে রেল৷

প্রথম পর্যায়ে সংরক্ষণের পলিসি অনুযায়ী, এসসি, এসটি ও ওবিসিদের জন্য সংরক্ষিত থাকবে যথাক্রমে ১৯,৭১৫টি, ৯,৮৫৭টি ও ৩৫,৪৮৫টি আসন। এছাড়া আর্থিক ভাবে পিছিয়ে পড়া উচ্চবর্ণের জন্য ১০ শতাংশ সরকারি সংরক্ষণ মেনেই নিয়োগ করবে ভারতীয় রেল৷ উচ্চবর্ণের সংরক্ষণের আওতায় ১৩ হাজার জনের চাকরি হবে৷ রেলই প্রথম সরকারি সংস্থা, যারা নিয়োগে উচ্চবর্ণের সংরক্ষণ চালু করার কথা ঘোষণা করল৷

ফাইল ছবি

প্রথম দফার পর দ্বিতীয় দফার নিয়োগ শুরু হবে। ৯৯,০০০-এর মধ্যে এসসি, এসটি ও ওবিসিদের জন্য সংরক্ষিত থাকবে যথাক্রমে ১৫০০০টি, ৭৫০০টি ও ২৭,০০০টি আসন। আর উচ্চবর্ণের জন্য ১০,০০০।

মমতা-যোগীর রাজ্যে ‘কচ্ছপ যোগ’, গ্রেফতার গাড়িসহ পাচারাকারি

স্টাফ রিপোর্টার, কলকাতা: পাচারের আগেই পুলিশের জালে বস্তাবন্দি কচ্ছপ সহ পাচারকারীরা৷ গোপন সূত্রে খবর পেয়ে সোমবার একটি গাড়ির পিছনে ধাওয়া করে পশ্চিমবঙ্গ ক্রাইম কন্ট্রোল ব্যুরো। মাঝ রাস্তায় গাড়িটিকে আটক করে সেখান থেকে উদ্ধার করা হয় ৫০১টি কচ্ছপ। ধরা পড়েছে দুই পাচারকারীও।

ক্রাইম কন্ট্রোল ব্যুরো এবং বর্ধমান বন দফতরের শাখার কাছে আগেই কচ্ছপ পাচারের খবর এসেছিল। সেই মতোই উত্তরপ্রদেশ থেকে আসা মারুতি সুইফটটিকে নজর রাখা হয়েছিল প্রথম থেকেই। এরপর বর্ধমানের পুরসলের কাছে গাড়িটি আসতেই গাড়িটিকে আটক করা হয়। গাড়ি থেকে একের পর এক কচ্ছপের খোলস বের হতে থাকে। জীবিত ও মৃত মিলিয়ে ৫০১টি কচ্ছপ উদ্ধার করা হয়ু।

এইসব কচ্ছপই বিভিন্ন দোকানে বা রেস্তোরাঁয় চলে যেত মাংস হিসাবে। কচ্ছপের খোলটিও বিভিন্ন ব্যবসায়িক ক্ষেত্রে ব্যবহারের জন্য পাচারের চেষ্টা করেছিল দুই পাচারকারী। কিন্তু ক্রাইম কন্ট্রোল ব্যুরো এবং বর্ধমান বন দফতরের শাখার তৎপরতায় সেই পরিকল্পনা বানচাল হয়ে যায়। এই কচ্ছপগুলি ফ্ল্যাপসেল এবং সফটসেল প্রজাতির কচ্ছপ বলেই জানাচ্ছে বনদফতর।

ধৃত অলঙ্কর রায় এবং পরিতোষ রায়। এরা পশ্চিমবঙ্গেরই বাসিন্দা, এরা উত্তরপ্রদেশে থেকে এগুলি এই রাজ্যে এনেছিল। এদেরকে গ্রেফতারের পর তাদের বন দফতরের হাতে হস্তান্তর করে সিআইডি৷ এর পিছনে আরও কোনও দলের হাত রয়েছে কিনা ধৃতদের জিজ্ঞাসাবাদ চালিয়ে তা জানার চেষ্টা চলছে৷

১৬ জানুয়ারি অর্থাৎ এক সপ্তাহ আগেই এই একই প্রজাতির কচ্ছপ পাচারের চেষ্টা করেছিল চার দুষ্কৃতি। এরাও ধরা পরে গিয়েছিল। পুলিশের জালে। গোপন সূত্রে খবর পেয়ে গত মঙ্গলবার খড়গপুর রেলস্টেশনে হানা দেয় সিআইডির গোয়েন্দারা৷ উদ্ধার হয় ২২ বস্তা বোঝাই কচ্ছপ৷ ওই পাচারকারিরা আবার উত্তরপ্রদেশের ছিল। ২২ জামুয়ারি মঙ্গলবারে বারাসত থেকেও উদ্ধার হয় এই ধরনেরই কচ্ছপ।সবমিলিয়ে উত্তরপ্রদেশ এবমগ পশ্চিমবঙ্গের মধ্যে কচ্ছপ পাচারের একটা বড় গ্যাং তৈরি হয়েছে তা স্পষ্ট। সেটাই খতিয়ে দেখার চেষ্টা করছে বন দফতর।

আজই প্রধান শিক্ষক, শিক্ষিকার প্যানেল লিস্ট প্রকাশ

কলকাতা: আজই (বুধবার) ২,২৪৩ জন প্রধান শিক্ষক ও শিক্ষিকা নিয়োগের প‍্যানেল লিস্ট প্রকাশ করা হবে৷ কাউন্সিলিং হবে চলতি মাসের ২২, ২৪ ও ২৫ তারিখ৷ অন্যদিকে উচ্চ মাধ্যমিকের পর এবার নজরে মাধ্যমিক স্তরে শিক্ষক নিয়োগ প্রক্রিয়া৷ মার্চের মধ্যেই এই নিয়োগ পক্রিয়া সম্পূর্ণ হবে৷ জানালেন স্কুল সার্ভিস কমিশনের চেয়ারম্যান সৌমিত্র সরকার৷ মাধ্যমিক স্তরে শিক্ষক নিয়োগ প্রক্রিয়ার প্রথম দফার সুপারিশের পর প্রার্থীদের নিয়োগপত্র দেওয়ার কাজ চলছে৷ অন্যদিকে

মঙ্গলবার এসএসসির চেয়ারম্যান সৌমিত্র সরকার বলেন, ‘মার্চের মধ্যেই ২২,৬৭৮টি শূন্যপদ পূরণ হবে৷ নাইন ও টেনের জন্য মোট শূন্যপদ রয়েছে ১২,৯০৫টি। এর মধ্যে সুপারিশ হয়েছে ৬,৫২৪টি। ক্লাস ইলেভেন ও টুয়েলভের জন্য শূন্যপদ রয়েছে ৫,৭১১। সুপারিশ হয়েছে ৪,৮৮৯। শিক্ষক, অশিক্ষক কর্মীর সঙ্গেই অশিক্ষক কর্মচারী ও গ্রুপ ডি-এর র শূন্য পদও ভরতি হবে৷’

স্কুল শিক্ষায় পড়ুয়া শিক্ষক অনুপাতে সাম্যতা আনতে সোমবারই ইনটার্ন শিক্ষক নিয়োগের প্রস্তাব দিয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী৷ বলা হয় সদ্য কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয়ে পাস করা পড়ুয়াদের স্কুলে ইন্টার্ন শিক্ষক হিসাবে নিয়োগ করা যেতে পারে৷ এক্ষেত্রে তাদের কাজের মেয়াদ হবে দু’বছর৷ উচ্চ প্রাথমিতে দুই হাজার ও পরের ধাপের জন্য ইন্টার্ন শিক্ষকদের ভাতা হবে আড়াই হাজার৷ প্রশ্ন উঠতে শুরু করে এসএসসিকে এড়িয়ে কীভাবে এই নিয়োগ সম্ভব৷ তারপরই মঙ্গলবার মাধ্যমিক স্তরে শিক্ষক নিয়োগ প্রক্রিয়া সম্পূর্ণ করার ঘোষণা করা হয়৷ তাহলে কী ইন্টার্ন বিতর্ক এড়াতেই তড়িঘড়ি এই পদক্ষেপ?

চাকরির বাজারে ভালো খবর; প্রচুর কর্মী নিয়োগ এই সংস্থায়

নয়াদিল্লিঃ চাকরির বাজারে বড় খবর। ভারতে ১৩০০ কর্মী নিয়োগ করবে ই-কর্মাস সাইট Amazon। সংস্থার একাধিক বিভাগের জন্যে এই কর্মী নিয়োগ করা হবে। এমনটাই Amazon-এর তরফে জানানো হয়েছে।

ভারতের বাজারে ক্রমশ ব্যবসা বাড়াচ্ছে এই ই-কর্মাস সাইট। আর সেদিকে তাকিয়ে বিভিন্ন বিভাগের জন্যে কর্মী নিয়োগের সিদ্ধান্ত এই সংস্থার। যদিও চেন্নাই, ব্যাঙ্গালুরু, হায়দরাবাদের জন্যে এই কর্মী নিয়োগ করা হবে। প্রসঙ্গত, গত বছর অর্থাৎ ২০১৮ সালে ৬০ হাজার কর্মী নিয়োগ করেছিল এই সংস্থা। যদিও গোটা বিশ্বে প্রায় কয়েক লক্ষ কর্মী রয়েছে এই সংস্থার। তবে ভারতের প্রত্যন্ত এলাকাতেও ব্যবসা বাড়াতে চায় এই সংস্থা। আর সেজন্যেও ভারতে আরও কর্মী নিয়োগ Amazon-এর।

Amazon-এর তরফে জানানো হয়েছে, সংস্থা সবসময় ট্যালেন্টের কদর করে। আর সেজন্যে মেধাবীদের জন্যে সেরা ঠিকানা হয় এই সংস্থা। এমনকি যারা চ্যালেঞ্জ নিতে ভালোবাসেন তাদের জন্যেও অ্যামাজন সেরা ঠিকানা বলে দাবি করা হয়েছে।

লোকসভা ভোটের জোর প্রস্তুতি শুরু বাংলায়

তিমিরকান্তি পতি, বাঁকুড়া: আনুষ্ঠানিকভাবে ২০১৯ লোকসভা ভোটের ঘোষণা শুরু না হলেও ভোট প্রস্তুতি শুরু করে দিল বাঁকুড়া জেলা প্রশাসন। সোমবার শহরের মাইনরিটি হলে আসন্ন ওই ভোটে ভিভিপিএটি ব্যবহার সম্পর্কে জেলা প্রশাসনের আধিকারিকদের নিয়ে সচেতনতা শিবির শুরু হল। উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত জেলাশাসক সব্যসাচী সরকার সহ জেলা প্রশাসনের শীর্ষ আধিকারিকরা।

এবার প্রথম লোকসভা ভোটে ভিভি প্যাটের ব্যবহার শুরু করছে কেন্দ্রীয় নির্বাচন কমিশন। ভোটার ভ্যারিফায়েড পেপার অডিট ট্রেল বা সংক্ষেপে ভিভিপ্যাট দেশ ও রাজ্যের সঙ্গে বাঁকুড়াতেও প্রতিটি থানাতে ব্যবহার করা হবে। এর ফলে সংশ্লিষ্ট ভোটার তার পছন্দের প্রার্থীকে ভোট দেওয়ার পর তিনি নিশ্চিত হতে চাইলে এই বিশেষ যন্ত্রের সাহায্যে তা ফের দেখে নিতে পারবেন। তার আগে এই ব্যবস্থা সম্পর্কে সাধারণ মানুষকে প্রশিক্ষণ ও সচেতন করতে নানান উদ্যোগ নিয়েছে প্রশাসন।

ফলে ভোট নিয়ে যে কারচুপি বা ইভিএম নিয়ে যে অভিযোগ ওঠে তা অনেকটাই কমবে বলে আশা করা হচ্ছে। এর আগে জেলায় এক জায়গায় এই ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছিল। এবার নির্বাচন কমিশনের নির্দেশে সারা দেশের সঙ্গে এই জেলাতেও এই ব্যবস্থা কার্যকরী হচ্ছে বলে জানা গিয়েছে। নির্বাচন কমিশনের বিশেষ এই উদ্যোগে খুশি জেলার সাধারণ ভোট দাতারা। তবে রাজনৈতিক দল গুলির তরফে এই বিষয়ে এখনও কোন প্রতিক্রিয়া মেলেনি।

অতিরিক্ত জেলাশাসক সব্যসাচী সরকার বলেন, এবারই প্রথম ভোটে জেলার সব অংশে এই ভিভিপিএটি ব্যবস্থা চালু হচ্ছে। যাদের ভোটাধিকার আছে তারা প্রত্যেকেই যেন এই ব্যবস্থা সম্পর্কে জানতে পারেন সেই জন্যই সচেতনতা শিবিরের আয়োজন করা হয়েছে। এই সচেতনতামূলক কাজ আজ থেকেই বাঁকুড়া জেলায় শুরু হল৷ প্রতিটি থানার ভিতরে যেমন এই ব্যবস্থা থাকছে৷ তেমনি মহকুমা ও জেলাশাসকের দফতরে এসেও সাধারণ মানুষ এই যন্ত্রের কাজ সম্পর্কে জানার সুযোগ পাবেন। এই ধরণের প্রচার হাটে বাজারে করা সম্ভব নয়। কারণ এই যন্ত্রটির স্পর্শকাতর বিষয় আলো ও ধুলো। সেই কারণেই আবদ্ধ ঘরের ভিতরেই সচেতনতামূলক প্রচার চালাতে হবে।

তিনি আরও বলেন, এই সচেতনতামূলক প্রচারে জেলায় ক্যালেন্ডার তৈরি করা হয়েছে। পূর্ব নির্ধারিত সূচী মেনে সংশ্লিষ্ট এলাকার মানুষকে আগাম জানিয়ে দেওয়া হবে। এই কাজে ত্রিস্তর পঞ্চায়েতের প্রতিটি নির্বাচিত সদস্য ও ইলেক্ট্রো লিটারেসি ক্লাব গুলিকে এই কাজে প্রচারে যুক্ত করা হয়েছে। রাজনৈতিক দলগুলিকে নিয়েও আলাদাভাবে প্রশিক্ষণের কাজ করা হবে বলে তিনি জানান।

বক্স অফিস কাঁপিয়ে কেজিএফ এবার মুক্তি পেল পাকিস্তানে

দক্ষিণী ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রির জন্য আরও এক সুখবর৷ ‘কেজিএফ চ্যাপ্টার ওয়ানের’ জন্য কন্নড় সিনেমার দরজা খুলে গেল পাকিস্তানে৷ প্রথম কন্নড় সিনেমা হিসাবে পাকিস্তানে মুক্তি পেল কেজিএফ৷ দক্ষিণী এই ছবিটি গোটা দেশে ভালো ব্যবসা করেছে৷ জানা গিয়েছে, পাকিস্তানের দর্শকদেরও ছবিটি বেশ পছন্দ হয়েছে৷

ফিল্ম রিভিউয়ার হরিশ মালিয়া ব্যাঙ্গালোর ফিল্ম ফেস্টিভ্যালে এসে দ্য নিউজ মিনিটকে জানান, শুক্রবার পাকিস্তানে মুক্তি পায় হিন্দিতে ডাব করা কেজিএফ সিনেমাটি৷ ছবির প্রযোজকদের মাধ্যমে শুনেছি কেজিএফ ভালো ব্যবসা করছে পাকিস্তানে৷ লাহোর ও ইসলামাবাদের মাল্টিপ্লেক্সগুলিতে ভিড়ও হচ্ছে৷ তবে ছবির কালেকশন কত সেটা জানতে সময় লাগবে৷ ডিস্ট্রিবিউররা এখনও বক্স অফিস কালেকশন দেয়নি৷

পাকিস্তানে এর আগে রজনীকান্ত অভিনীত এনথিরান ২.০ মুক্তি পায়৷ এছাড়া পবন কুমারের লুসিয়াও মুক্তি পাবার কথা ছিল৷ কিন্তু ফিল্ম ফেস্টিভ্যালেই সেটি সীমাবদ্ধ রাখা হয়৷ কন্নড় অভিনেতা যশ ও শ্রীনিধি শেঠি অভিনীত ‘কেজিএফ’ ও বলিউড সুপারস্টার শাহরুখ খানের ‘জিরো’ একই দিনে মুক্তি পায়৷ কিন্তু বক্স অফিস কালেকশনে ক্রমেই জিরোকে পিছনে ফেলে দেয় কেজিএফ৷ ৮০ কোটি বাজেটে তৈরি প্রশান্ত নীল পরিচালিত এই ছবিটি আন্তর্জাতিক বক্স অফিসে ২০০ কোটির ক্লাবে প্রবেশ করেছে।

ছবিটির সাফল্যের জন্য তো বটেই তবে খানিক নেগেটিভ পাবলিসিটি হয়ে গিয়েছে৷ দিন কতক আগে তাঁর বাড়িতে আয়কর আধিকারিকরা হানা দিয়েছিলেন৷ তিনি সহ আরও কয়েকজন দক্ষিনী অভিনেতাদের নাম উঠে এসেছিল৷ কিন্তু এসব এখন অতীত৷